স্থানীয় খবর

ধুনটের ইছামতি নদীতে ব্রীজ না থাকায় ৩ গ্রামের মানুষের দুর্ভোগ

Spread the love

এম. এ. রাশেদ (বগুড়া) প্রতিনিধিঃ
বগুড়ার ধুনট উপজেলার কালের পাড়া ইউনিয়নের অর্ন্তগত সবুজ ছায়াঘেরা মাদারভিটা গ্রামের মাঝ দিয়ে বয়ে গেছে ইছামতি নদী। নদীতে একটি ব্রিজের অভাবে বছরের পর বছর দুর্ভোগ নেমে এসেছে ৩ গ্রামের। গ্রাম গুলি হল মাদারভিটা পাট ধুনট রতœা পাড়া গ্রামের গুলির দৈনিক শত শত লোক লোকজন পাড়া পাড় হয়। গ্রামের তরুণ সমাজ স্বেচ্ছা শ্রমে বাশেঁর সাকোঁ নির্মান করলেও গত কয়েকদিনের ভারী বর্ষণে তলিয়ে গেছে ইচ্ছামতী নদী অবস্থিত বাঁশের সাকোঁটি। ফলে যোগাযোগ বিছিন্ন হয়ে পড়েছে নদীর দু তীরের বাসিন্দা সহ আশেপাশের কয়েকটি গ্রামের মানুষের।
বিশেষ করে ইছামতি নদীর দুই তীরের মানুষজনের যেন দুর্ভোগের শেষ নেই। নদীতে ব্রিজ না থাকায় নিত্য প্রয়োজনীয় জিনিসপত্র, চাষকৃত শাক-সবজি, ধান, পাট সহ মালামাল নদী পার হতে বড় কষ্টদায়ক হয়ে পড়েছে। নদীর পার্শ্ববর্তী গ্রামের মানুষগুলি সংবাদকর্মী এম.এ রাশেদকে বলেন এই নদীতে ব্রিজ নির্মাণ করা হলে ধান পাট বিভিন্ন কৃষি ফসল তাড়া তাড়ি নির্দিষ্ট সময়ের মধ্যে ধুনট বাজার বিক্রি করতে পারব। বর্ষাকালে টানা বৃষ্টি কারণে এই ইছামতি নদীটি ভারী বর্ষণে নদীর পানি বৃদ্ধি ফলে আমাদের যোগাযোগ বিছিন্ন হয়ে পরে। লোকজন নদী পার হয়ে ধুনট বাজারে যেতে পারেন না। আমাদের অনেক কষ্ট হয়।
শনিবার সকালে মাদারভিটা গ্রাম পরিদর্শনকালে দেখা যায়, টানা বর্ষণে গ্রামবাসীর স্বেচ্ছায় নির্মিত বাশেঁর সাকোঁটি ডুবে যায়। পরে স্রোত বাড়তে থাকলে ভেসে যায় সাঁকোর পুরো অংশ। সংবাদপত্র লেখনীর মাধ্যমে অতি শীগ্রই মাদার ভিটা ইসামতি নদীতে একটি ব্রিজ নির্মাণের দাবি করেন উর্দ্ধতন কর্মকর্তাদের কাছে।
এ বিষয়ে মাদারভিটা গ্রামের আবু হানিফ বলেন, প্রায়ই বর্ষা মৌসুমে পানি বাড়ায় যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে পরে। ফলে মাদারভিটা,পারধুনট, ঘুগরা পাড়া, আরকাটিয়া, পারুলকান্দি, মোহনপুর, নাটাবাড়ী এলাকার কয়েক হাজার লোকজনের যাতায়াতের জন্য গুরুত্বপূর্ণ এ রাস্তটি অচল হয়ে থাকে। একটি ব্রিজ নির্মান হলে এলাকাবাসীর দুর্ভোগ লাঘব হবে।
এছাড়া হাসেন আলী বলেন, বছরের পর বছর আমরা ভোট দিয়ে জন প্রতিনিধি বানিয়েছি। তারা শুধু আশ্বাস দিয়ে গেছে কিন্তু আজও ব্রিজ নির্মাণ হয়নি। কর্তৃপক্ষের সু-দৃষ্টি কামনা করছি যাতে মাদারভিটা ইছামতী নদীতে একটি ব্রিজ নির্মান করা হয়।
এরকম অনেক মানুষের সাথে কথা বলে জানা যায় তাদের মনের একটায় চাওয়া – একটি ব্রিজ নির্মান করলে তাদের দুর্ভোগ লাঘব হবে। এজন্য এলাকাবাসী মাদার ভিটা ইছামতী নদীতে একটি ব্রিজ নির্মানের জন্য সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের দৃষ্টি আকর্ষণ করেন।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button
Close