দেশের খবর

বড়পুকুরিয়ার সাত এমডি সহ ২৩ জনের বিরুদ্ধে পরোয়ানা

Spread the love

শেরপুর ডেস্ক: দিনাজপুরের বড়পুকুরিয়া কয়লা খনিতে চুরির ঘটনায় দুর্নীতি দমন কমিশনের মামলায় সাবেক সাত এমডি সহ ২৩ কর্মকর্তার বিরুদ্ধে গ্রেপ্তারি পরোয়ানা জারি করেছে আদালাত। মঙ্গলবার বিকালে দিনাজপুর জেলা ও দায়রা জজ আজিজ আহমদ ভুঞা আসামিদের বিরুদ্ধে চার্জশিট আমলে নিয়ে এই পরোয়ানা জরি করেন।
দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক) দিনাজপুর সমন্বিত জেলা কার্যালয়ের মামলা পরিচালনার দায়িত্বে নিয়োজিত পাবলিক প্রসিকিউটর এম. আমিনুর রহমান এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।
তিনি জানান, এই চাঞ্চল্যকর মামলার অভিযোগপত্র গ্রহণ বিষয়ে শুনানি শেষে বিচারক মামলার অভিযোগপত্রের তালিকাভুক্ত বড়পুকুরিয়ার সাবেক সাত এমডি সহ ২৩ জনের বিরুদ্ধে গ্রেপ্তারি পরোয়ানা জারির আদেশ দিয়েছেন। আগামী ধার্য তারিখের মধ্যে ২৩ আসামিকে আদালতে সোপর্দ করতে থানা পুলিশ কর্মকর্তাকে বলা হয়েছে।
অভিযোগপত্রে উল্লেখিত সাত এমডি হলেন খনি প্রকল্পের সাবেক এমডি মো. মাহবুবুর রহমান, মো. আব্দুল আজিজ খান, প্রকৌশলী খুরশিদ আলম, প্রকৌশলী কামরুজ্জামান, মো. আনিসুজ্জামান, প্রকৌশলী এসএম নুরুল আওরঙ্গজেব ও প্রকৌশলী হাবিব উদ্দীন আহমেদ।
জানা গেছে, ২০০৬ সালের জানুয়ারি মাস থেকে ২০১৮ সালের ১৯ জুলাই পর্যন্ত ১ লাখ ৪৩ হাজার ৭২৭ দশমিক ৯২ মেট্রিক টন কয়লা চুরি হয় বড়পুকুরিয়া কয়লা খনি থেকে। যার আনুমানিক মূল্য ২৪৩ কোটি ২৮ লাখ ৮২ হাজার ৫০১ টাকা ৮৪ পয়সা। এই ঘটনায় বড়পুকুরিয়া কোল মাইনিং কোম্পানির ব্যবস্থাপক (প্রশাসন) মো. আনিসুর রহমান বাদী হয়ে ২০১৮ সালের ২৪ জুলাই ১৯ জনের নাম উল্লেখ করে পার্বতীপুর থানায় মামলা করেন। মামলাটি দুদকের তফসিলভুক্ত হওয়ায় দুদক কার্যালয়ে হস্তান্তর করা হয়। দুদক তদন্ত শেষে এক বছর পর ২৪ জুলাই ২০১৯ তারিখে আদালতে চার্জশিট দাখিল করে। সেই থেকে অভিযুক্তরা আদালতে হাজির হননি।

দিনাজপুর পুলিশ কোর্ট পরিদর্শক মো. আব্দুল মজিদ জানান, মামলা দায়েরের পর থেকে এই মামলায় কোনো আসামি এখন পর্যন্ত জামিনের জন্য আবেদন না করায় তাদের বিরুদ্ধে গ্রেপ্তারি পরোয়ানা জারি করেছেন আদালত।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button
Close