স্থানীয় খবর

শেরপুরে করোনা সংক্রমণ রোধকল্পে জনসচেতনতামূলক অভিযান

Spread the love


ষ্টাফ রির্পোটার: করোনা ভাইরাসের দ্বিতীয় পর্যায়ের সংক্রমণ রোধকল্পে সরকারের নির্দেশনা মোতাবেক ১৪ অক্টোবর বগুড়া জেলার শেরপুর উপজেলার বিভিন্ন স্থানে জনসচেতনতামূলক অভিযান চালিয়েছে উপজেলা প্রশাসন। এর মধ্যে খামারকান্দী ইউনিয়নের ৪ ও ৫ নং ওয়ার্ড করোনা প্রতিরোধ কমিটির উদ্যোগে এবং শেরপুর উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোঃ লিয়াকত আলী সেখের নেতৃত্বে জনসচেতনতামুলক কার্যক্রম চালানো হয়। এ সময়ে মাস্ক পরতে উদ্বুদ্ধ করতে জনসাধারণের মাঝে সচেতনতামূলক লিফলেট বিতরণ করা হয়। এছাড়াও মাইকিং যোগে মাস্ক পরতে জনগণকে উৎসাহিত করা হয়। পাশাপাশি গরীব ও অসহায়দের মাঝে বিনামূল্যে মাস্ক বিতরণ করা হয়।
এছাড়াও খামারকান্দী বাজার, ফুলবাড়ী ঘাটপার বাজার, ফুলবাড়ী বাজার, চকপাথালিয়া বাজারে জনসচেতনতার পাশাপাশি বাজার মনিটরিংও করা হয়। দ্রব্যমূল্য স্থিতিশীল রাখতে ব্যবসায়ীদের পরামর্শ দেয়া হয়। দোকানে মূল্যতালিকা টানানো নিশ্চিত করা হয়। এছাড়াও ঔষধের দোকান ড্রাগ লাইসেন্স আছে কিনা তা পর্যবেক্ষণ করা হয়। এসময় মাস্ক না পরায় ৩ জনকে এবং নিজ দোকানে প্রকাশ্যে তামাকজাত পণ্যের বিজ্ঞাপন টাঙ্গানোর অপরাধে ১ জনসহ মোট ৪ জনকে মোট ১,২০০ টাকা জরিমানা করা হয়।
চালের মজুতদারি এবং দামের উর্ধ্বগতি রোধে শেরুয়া বটতলা, দুবলাগাড়ী বাজার এবং বাগড়া এলাকায় কয়েকটি রাইস মিল সরেজমিন পরিদর্শন করা হয়।
এসময় ইউএনও বলেন, আসন্ন শীতকালে করোনাভাইরাসের দ্বিতীয় পর্যায়ের সংক্রমণ ও বিস্তারের আশঙ্কা রয়েছে। তাই ভিড় ও জনসমাগম এড়িয়ে চলতে হবে। ঘরের বাইরে বের হতে হলে মুখে অবশ্যই মাস্ক পরিধান করতে হবে। মাস্ক পরিধান করা সকলের জন্য বাধ্যতামূলক । মাস্ক পরিধান না করলে জেল-জরিমানা করার বিধান রয়েছে। জনস্বার্থে উপজেলা প্রশাসনের এধরনের কার্যক্রম অব্যাহত থাকবে।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button
Close