স্থানীয় খবর

বগুড়ায় নারী নির্যাতনকারীদের জন্য অশনি সংকেত জানালো পুলিশ সুপার

Spread the love


শেরপুর ডেস্ক: নারীদের উত্যক্তকারী, নির্যাতনকারী, ধর্ষণকারীদের অশনি সংকেত জানানোর জন্য এই বিট পুলিশিং সমাবেশের আয়োজন বলে জানান বগুড়া জেলা পুলিশ সুপার আলী আশরাফ ভূঞা।

শনিবার (১৭ অক্টোবর) সকাল ১০ টায় বগুড়া শহরের শহীদ খোকন ও শিশু পার্কে বিট পুলিশিংয়ের এক সমাবেশে এ কথা বলেন তিনি। সারাদেশের মত বগুড়ায় এই সমাবেশের আয়োজন করে জেলা পুলিশ।

পুলিশ সুপার বলেন, যারা এতদিন নারীদের অসম্মান করেছেন, উত্যক্ত করেছেন, শারীরিক ও মানসিক নির্যাতন করেছেন এবং ধর্ষণকারী বা ধর্ষণের মনোভাব রাখেন তাদের অশনী সংকেত জানাচ্ছে বাংলাদেশ পুলিশ। তাদের জন্য কঠোর ব্যবস্থা নেয়া হবে। বিট পুলিশিংয়ের এই সমাবেশের মাধ্যমে তাদের এই বার্তা জানানো হচ্ছে।
ধর্ষণের সর্বোচ্চ শাস্তি মৃত্যুদণ্ড করায় প্রধানমন্ত্রীকে ধন্যবাদ জানিয়ে তিনি বলেন, বর্তমান সময়ে নারীদের নির্যাতন প্রতিরোধে এমন সিদ্ধান্ত যুগোপযোগী।

আলী আশরাফ ভূঞা সমাবেশে বলেন, দেশের শিক্ষার্থীসহ সাধারণ মানুষদের মাঝে যে আওয়াজ উঠেছে তাতে একমত বাংলাদেশ পুলিশ। পাশাপাশি পরিবারদের তাদের সন্তানদের প্রতি আরও সচেতন হতে বলেন তিনি।

সমাবেশে উপস্থিত অতিথিরা বক্তব্য দেন। তারা বলেন, দেশের আর্থসামাজিক, শিক্ষা ব্যবস্থায় আরও উন্নত করতে হবে। প্রয়োজনে আমাদের শিক্ষা ব্যবস্থা ঢেলে সাজাতে হবে। এ ছাড়া পরিবারদের সচেতনতা বাড়াতে হবে। আমাদের সন্তানেরা কোথায় যায়, কী করে এসব জানতে হবে। তাদের সাথে নৈতিকতা, নারীদের সম্মান করার বিষয়ে আলোচনা করতে হবে। এ সময় বক্তারা এমন সমাবেশ আয়োজন করায় জেলা পুলিশকে সাধুবাদ জানান।

সমাবেশে আরও উপস্থিত ছিলেন অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট সালাহউদ্দিন আহমেদ, জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আলহাজ¦ মজিবুর রহমান মজনু, সাধারণ সম্পাদক রাগেবুল আহসান রিপু, জেলা আইনজীবী সমিতির সভাপতি গোলাম ফারুক, টিএমএসএসের নির্বাহী পরিচালক হোসনে আরা, বগুড়া চেম্বারের সভাপতি মাসুদুর রহমান মিলন, দৈনিক করতোয়া পত্রিকার সম্পাদক মোজাম্মেল হক লালু, বগুড়া প্রেসক্লাবের সভাপতি মাহমুদুল আলম নয়ন, মহিলা কলেজের অধ্যক্ষ ওয়াহিদা বেগম, পুলিশ লাইন্স স্কুল ও কলেজের অধ্যক্ষ শাহাদত আলম ঝুনু, সদর উপজেলার নারী ভাইস চেয়ারম্যান ডালিয়া আক্তার রিক্তা, জেলা নারী ও শিশু ট্রাইবুনালের সরকারি কৌসলী নরেশ মুখার্জি প্রমুখ। সঞ্চালনায় ছিলেন সদর সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার সনাতন চক্রবর্তী। এ ছাড়া সমাবেশে বগুড়ার ১৩৩ টি বিট পুলিশ এবং পুলিশ লাইন্স স্কুল ও কলেজের শিক্ষার্থীরা উপস্থিত ছিল।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button
Close