স্থানীয় খবর

শাজাহানপুরে ছিনতাইয়ের অভিযোগে শেরপুরের ৪ জন গ্রেফতার

Spread the love


শেরপুর ডেস্কঃ মুরগি বিক্রয়ের নামে ব্যবসায়ীকে ডেকে এনে টাকা ছিনতাই করার অভিযোগে শেরপুর উপজেলার জুয়ানপুর গ্রামের চারজনকে গ্রেফতার করেছে বগুড়ার শাজাহানপুর থানা পুলিশ। রোববার (২০ জুন) দুপুর দুইটার দিকে তাদের আদালতের মাধ্যমে জেলহাজতে পাঠানো হয়।
এ সময় তাদের কাছ থেকে দুটি বার্মিজ চাকু ও ছিনতাই কাজে ব্যবহত ২ টি মোটরসাইকেল উদ্ধার করে পুলিশ।

শনিবার রাত সাড়ে ১০টার দিকে উপজেলার ডেমাজানী এলাকা থেকে স্থানীয় লোকজনের সহযোগিতায় ২ জনকে গ্রেফতার করে পুলিশ। পরে রাতে অভিযান চালিয়ে শেরপুরের জুয়ানপুর থেকে আরও ২ জনকে গ্রেফতার করা হয়।
গ্রেফতারকৃতরা হলেন, শেরপুর উপজেলার গাড়ীদহ ইউনিয়নের জুয়ানপুর গ্রামের সাইফুল ইসলাম (৩৮),গোলাম মোস্তফা (২৫), নিজাম উদ্দিন (২০) ও রাসেল মিয়া (১৯) ।
পুলিশ সূত্রে জানা যায়, লালমনিরহাটের কালিগঞ্জ উপজেলার লিটন মুরগির ব্যবসা করেন। এক সপ্তাহ আগে গ্রেফতার সাইফুল ইসলাম নিজেকে ফরহাদ পরিচয় দিয়ে কম দামে মুরগি বিক্রির লোভ দেখান লিটনকে। সাইফুলের কথা বিশ্বাস করে তিনি ভাতিজা আসাদুল ও গাড়ি চালক রকিবকে নিয়ে গতকাল শনিবার রাত সাড়ে ১০টার দিকে বগুড়ার শাজাহানপুর উপজেলায় আসেন।
কথা অনুযায়ী উপজেলার আড়িয়াবাজারের কাটাবাড়ি গ্রামে আসলে সাইফুলের সাথে দেখা হয় লিটনের। এ সময় খামারে নিয়ে যাওয়ার কথা বলে পাশের একটি কলা বাগানে নিয়ে গিয়ে লিটনকে বেদম মারধর করা হয়। তার কাছে থাকা ২০ হাজার ৪৫০ টাকা ছিনিয়ে নেন সাইফুল ও তার সহযোগিরা।
একপর্যায়ে মুরগীর চুক্তি অনুযায়ী আরও টাকার জন্য চাপ সৃষ্টি করে লিটনের উপর। তখন তিনি জানান বাকি টাকা তার ভাতিজা আসাদুল এবং ড্রাইভার রকিবের কাছে আছে। ছিনতাইকারীদের কথা অনুযায়ী লিটন তার ভাতিজার কাছে ফোন দিয়ে টাকা আনতে বলে। কিন্তু এতে ভাতিজা আসাদুল ও গাড়ি চালকের সন্দেহ হয়। তাই তারা গাড়ি নিয়ে নিরাপদ জায়গায় চলে যায়।
এর মধ্যে ছিনতাইকারীরা গাড়ির সন্ধান না পেয়ে লিটনকে মোটরসাইকেলে করে তাদের সাথে নিয়ে যায়। পথে ডেমাজানী এলাকায় এলে লিটন মোটরসাইকেল থেকে লাফ দিলে স্থানীয়রা বিষয়টি বুঝতে পেরে সাইফুল ও তার সহযোগিকে আটক করে। পরে পুলিশ ঘটনা শুনে রাতেই অভিযানে নামে। সাইফুলের দেয়া তথ্যে আরও দুই জনকে গ্রেফতার করে পুলিশ।
এ ঘটনায় ভুক্তভোগী লিটন বলেন, সাইফুল ইসলাম তার ছদ্মনাম ফরহাদ ব্যবহার করে মুরগি বিক্রির নামে আমাকে শাজাহানপুর উপজেলা আড়িয়া বাজার কাঁটাবাড়িয়া গ্রামে আসতে বলে। বিশ্বরোড থেকে ১০০ মিটার ভিতরে ফার্ম বলে আড়িয়া পালাপাড়ায় কলা বাগানের ভিতরে নিয়ে চাকু ধরে কাছ থাকা ২০ হাজার টাকা ছিনিয়ে নেয়।
শাজাহানপুর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) আব্দুল্লাহ আল মামুন জানান, মুরগির ব্যবসায়ীর টাকা ছিনতাইয়ের ঘটনায় মামলা হয়েছে। গ্রেফতার চারজনকে আদালত মাধ্যমে জেল হাজতে পাঠানো হয়েছে।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button
Close