স্থানীয় খবর

বগুড়ায় অস্ত্র-মাদক সহ গ্রেপ্তার ১১

Spread the love

শেরপুর ডেস্কঃ বগুড়ায় পৃথক অভিযান চালিয়ে বিদেশি পিস্তল ও ইয়াবা সহ ১১ জনকে গ্রেপ্তার করেছে বগুড়া গোয়েন্দা পুলিশ (ডিবি)। এঘটনায় সংশ্লিষ্ট থানায় পৃথক চারটি মামলা দায়ের করা হয়েছে।
গোয়েন্দা পুলিশের ওসি আসলাম আলী জানান, বুধবার বিকেলে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে বগুড়ার শাজাহানপুর উপজেলার শাকাপালা পূর্বপাড়া এলাকায় অভিযান চালিয়ে একটি বিদেশি পিস্তল ও দুই রাউন্ড গুলি উদ্ধার করা হয়। এসময় বগুড়া সদরের মালতিনগর এলাকার তামজিদ হোসেন চুন্নুর ছেলে তৌহিদুল ইসলাম সোহেল (৩০) নামে এক জনকে গ্রেপ্তার করা হয়। পরবর্তিতে জিজ্ঞাসাবাদে একই এলাকায় স্থানীয় একটি জঙ্গলের ভিতর থেকে আরো দুইটি দেশীয় ওয়ান শুটার পাইপগান, ছয়টি চাপাতি, দুইটি ককটেল উদ্ধার করা হয়।
এ ছাড়া বৃহস্পতিবার বেলা সাড়ে ১১ টার দিকে শাজাহানপুর উপজেলার পারতেখুর গ্রামে স্থানীয় একটি কারখানার সামনে থেকে পাঁচশ পিস ইয়াবা উদ্ধার করা হয়। এসময় উপজেলার বাঁশগাড়ি পূর্বপাড়ার আবুল হোসেনের ছেলে শরিফুল ইসলাম, পারতেখুর দণি পাড়ার মালেক মন্ডলের ছেলে শাহীন মন্ডল (৩৮) এবং বগুড়ার শেরপুর উপজেলার উলিপুর গ্রামের মুনছুর আলীর ছেলে হারুনুর রশিদ শামীমকে (২৯) গ্রেপ্তার করা হয়েছে। এ ঘটনায় শাজাহানপুর থানায় পৃথক দু’টি মামলা দায়ের করা হয়েছে।
এদিকে, বেলা সাড়ে ১২ টার দিকে বগুড়া সদরের রাজাপুর ইউনিয়নের জয়বাংলা বাজার এলাকায় অভিযান চালিয়ে পাঁচশ ৫০ পিস ইয়াবা উদ্ধার করা হয়। গ্রেপ্তার করা হয় বগুড়ার গাবতলী উপজেলার সাবেকপাড়ার বাদশা মিয়ার ছেলে শাহীন (৩০) ও মোফাজ্জল হোসেনের ছেলে মিনহাজ সুমনকে (৩২)। এ ছাড়াও বুধবার দিবাগত রাতে বগুড়া শহরের রাজাবাজার এলাকা থেকে চারশত পিস ইয়াবা উদ্ধার করা হয়। এ সময় জয়পুরহাট জেলা সদরের বুলুপাড়ার সমীরণ কিশোরের ছেলে নিহার রঞ্জন (৩৯), চাপাইনবাবগঞ্জ জেলার শিবগঞ্জ উপজেলার শৈলালপাড়ার মৃত জয়নাল আবেদীনের ছেলে আবু সালেহ (২৫), চরপাড়া গ্রামের নওসেদ আলীর ছেলে বাবুল আলী (৩০), বগুড়া সদরের নিশিন্দারা এলাকার ইলিয়াস উদ্দিনের ছেলে মেহেদী হাসান (২৫) এবং ফুলবাড়ি উত্তরপাড়ার আহমেদ আলীর ছেলে আনসার আলীকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। এ ঘটনায় বগুড়া সদর থানায় পৃথক দুইটি মামলা দায়ের করা হয়েছে।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button
Close