বিদেশের খবর

সৌদিতে গ্রেপ্তার দুই শতাধিক নারী-পুরুষ

Spread the love

শেরপুর ডেস্ক: আটসাট পোশাক পরা সহ প্রকাশ্যে শালীনতা লঙ্ঘনের অভিযোগে সৌদি আরবে ২০০ জনের বেশি নারী-পুরুষকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। রণশীল সৌদি আরবে সম্প্রতি সামাজিক বিভিন্ন নিয়মে শিথিলতা আনার উদ্যোগ নেওয়ার পর এবারই প্রথম এভাবে দুই শতাধিক মানুষকে গ্রেপ্তার করা হলো। সোমবার রিয়াদ পুলিশ একাধিক টুইট বার্তায় এ তথ্য জানিয়েছে বলে ডেইলি মেইলের এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে।
টুইট বার্তায় দেশটির পুলিশ জানিয়েছে, অশালীন পোশাক পরাসহ নৈতিকতা লঙ্ঘনের দায়ে গত সপ্তাহে ১২০ জন পুরুষ ও নারীকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। শালীনতা লঙ্ঘনকারীদের গ্রেপ্তারের পর জরিমানাও করা হয়েছে।
আরেক বিবৃতিতে বলা হয়েছে, সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে হয়রানির শিকার হয়েছেন বলে নারীরা অভিযোগ জানানোর পর আরও ৮৮ জনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। চলতি মাসের শুরুর দিকে রিয়াদে এমডিএল বিস্ট সঙ্গীত উৎসবে হয়রানির শিকার হয়েছিলেন বলে ওই নারীরা অভিযোগ করেন।
রিয়াদে এই সঙ্গীত উৎসবে হাজার হাজার মানুষ অংশ নিয়েছিলেন। তবে গ্রেপ্তাকৃতদের বিষয়ে বিস্তারিত কোনো তথ্য দেয়নি পুলিশ। এমনকি সন্দেহভাজনদের কবে গ্রেপ্তার করা হয়েছে সে বিষয়েও জানানো হয়নি।
সৌদিতে চলচ্চিত্র নির্মাণ, প্রদর্শনী এবং নারীদের গাড়ি চালানোর ওপর আরোপিত কয়েক দশকের পুরোনো নিষেধাজ্ঞা চলতি বছর প্রত্যাহার করে সামাজিক সংস্কারের ব্যাপক উদ্যোগ নেন যুবরাজ মোহাম্মদ বিন সালমান। তার এই উদ্যোগের পর সৌদির দেশটিতে এখন নারী-পুরুষরা কনসার্টে অংশ নিতে পারছেন।
সামাজিক বিভিন্ন নিয়মে শিথিলতা আনতে সৌদি যুবরাজ মোহাম্মদ বিন সালমানের নেওয়া উদ্যোগে দেশটির অনেক নাগরিক স্বাগত জানিয়েছেন, তবে এদের বেশিরভাগের বয়স ৩০ এর নিচে।
তবে গত সেপ্টেম্বরে সৌদি আরব কর্তৃপ জানায়, শালীনতা লঙ্ঘন, অশালীন পোশাক পরা, জন-আকর্ষণ তৈরি করে এমন আচরণ প্রদর্শনকারীদের বিরুদ্ধে শাস্তিমূলক ব্যবস্থা নেওয়া হবে। প্রথমবারের মতো দেশটিতে পর্যটক ভিসা ইস্যু করার পর সৌদি কর্তৃপ এক বিবৃতিতে এ তথ্য জানায়।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button
Close