দেশের খবর

করোনা ভাইরাস নিয়ে গুজব না ছড়ানোর আহ্বান স্বাস্থ্যমন্ত্রীর

Spread the love

শেরপুর ডেস্ক: করোনা ভাইরাস নিয়ে গুজব না ছড়ানোর আহ্বান জানিয়েছেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক। সকালে রাজধানীর মহাখালীতে নবনির্মিত নার্সিং অধিদপ্তরের নতুন ভবন পরিদর্শনকালে তিনি বলেন, ‘করোনাভাইরাস নিয়ে একশ্রেণির মানুষ কিছু গুজব ছড়ানোর চেষ্টা করছে, যা কোনোভাবেই কাম্য হতে পারে না।’
স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেন, ‘মুরগির মাংস খাওয়া, মাস্ক ব্যবহার করা থেকে শুরু করে বিদেশ ফেরত সুস্থ্ মানুষকে নিয়ে গুজব ছড়ানোর চেষ্টা করা হচ্ছে। করোনাভাইরাস নিয়ে স্বাস্থ্য অধিদপ্তর থেকে প্রতিদিনই আপডেট দেয়া হচ্ছে এবং করণীয় বিষয়গুলো বলা হচ্ছে। সুতরাং কোথাও কোনো রকম গুজব ছড়ানো যাবে না। স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের নির্দেশনার বাইরে অন্য কোনো ব্যক্তি বা প্রতিষ্ঠানের কোনো ধরনের কথায় কান দেয়া যাবে না।’
করোনাভাইরাস প্রতিরোধে স্বাস্থ্য খাত কতটা প্রস্তুত, এ প্রশ্নের জবাবে স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেন, ‘করোনাভাইরাস প্রতিরোধে স্বাস্থ্য খাত সবদিক দিয়ে এখন পুরোপুরি প্রস্তুত। ইতোমধ্যে দেশের সকল প্রবেশপথে ২ লাখেরও বেশি মানুষকে স্ক্রিনিং করা হয়েছে। সন্দেহভাজন ৭২ জন বিদেশফেরত মানুষকে পরীক্ষা-নিরীক্ষা করা হয়েছে। এখন পর্যন্ত দেশে একজনও করোনাভাইরাস সংক্রমিত হয়নি। কোনো কারণে কোনো করোনা সংক্রমিত রোগী এলে তার চিকিৎসার জন্য সব ধরনের জোরালো প্রস্তুতি দেশের স্বাস্থ্য খাতের রয়েছে।’
নার্সিং অধিদপ্তরের গুরুত্ব উল্লেখ করে স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেন, ‘দেশে বর্তামানে সরকারি, বেসরকারি মিলিয়ে ৩৭৬টি নার্সিং ইনস্টিটিউট আছে। এখান থেকে প্রতি বছর গড়ে প্রায় ২০ হাজার নার্স বের হয়ে আসছে। প্রতিষ্ঠানগুলোকে সরকারের নীতিমালার আওতায় আনতে হবে। প্রতিষ্ঠানগুলোর সরকারের নীতিমালা পুরোপুরি মেনে চলতে এবং নার্সিং পেশাকে আরো আধুনিক করতে নার্সিং অধিদপ্তরের গুরুত্ব অনেক। নতুন ভবনের অবকাঠামোগত সব কাজই প্রায় শেষ হয়েছে। সবকিছু ঠিক থাকলে আগামী মাসেই ভবনটিতে কার্যক্রম শুরু করা সম্ভব হবে।’
পরে স্বাস্থ্যমন্ত্রী নবনির্মিত ভবনটি ঘুরে ঘুরে দেখেন এবং প্রয়োজনীয় দিকনির্দেশনা দেন। পরিদর্শনকালে স্বাস্থ্য শিক্ষা বিভাগের সচিব আলী নূর, নার্সিং অধিদপ্তরের মহাপরিচালক সিদ্দিকা আক্তারসহ মন্ত্রণালয় ও অধিদপ্তরের অন্যান্য পদস্থ কর্মকর্তা স্বাস্থ্যমন্ত্রীর সঙ্গে ছিলেন।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button
Close